1. nasiralam4998@gmail.com : admi2017 :
সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ০৭:২৭ পূর্বাহ্ন

১৪ জুনের রেলের অগ্রিম টিকিট মিলছে আজ

  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ৪ জুন, ২০২৪
  • ৩৮ বার

আসন্ন ঈদুল আজহা উপলক্ষে ট্রেনের আগাম টিকিট বিক্রি করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। বিক্রির তৃতীয় দিন আজ মঙ্গলবার আগামী ১৪ জুনের ট্রেনের টিকিট বিক্রি হচ্ছে। সকাল ৮টা থেকে শুরু হয় পশ্চিমাঞ্চলের টিকিট বিক্রি, আর পূর্বাঞ্চলের টিকিট বিক্রি শুরু হবে দুপুর ২টা থেকে।

বরাবরের মতো এবারও শতভাগ আসন অনলাইনে বিক্রি করা হবে। ঈদের আগে বিশেষ ব্যবস্থায় ৫ দিনের ট্রেনের আসন বিক্রি করা হবে।

বাংলাদেশ রেলওয়ের নেওয়া কর্মপরিকল্পনায় বলা হয়, এবার ঢাকা থেকে বহির্গামী ট্রেনের মোট আসন সংখ্যা হবে ৩৩ হাজার ৫০০টি, যা শতভাগ অনলাইনে বিক্রি করা হবে। ২ জুন থেকে যাত্রা শুরুর ১০ দিন আগের আন্তঃনগর ট্রেনের আসন অগ্রিম হিসেবে বিশেষ ব্যবস্থাপনায় বিক্রি করা হবে।

বিক্রির দ্বিতীয় দিন গতকাল সোমবার (৩ জুন) ১৩ জুনের ট্রেনের টিকিট বিক্রি হয়েছে। সকাল ৮টা থেকে শুরু হয়েছিল পশ্চিমাঞ্চলের টিকিট বিক্রি, আর পূর্বাঞ্চলের টিকিট বিক্রি শুরু হয়েছিল দুপুর ২টা থেকে। বিক্রি শুরু হওয়ার ৪ ঘণ্টার মধ্যেই পশ্চিমাঞ্চলের টিকিট প্রায় সবই শেষ হয়ে যায়। ১৪ হাজার ১৫৭টি টিকিটের মধ্যে প্রায় ১৪ হাজার টিকিট বিক্রি হয়ে যায় এ সময়। আর প্রথম আধা ঘণ্টায় টিকিট পেতে হিট হয় ১ কোটি ৯০ লাখ।

রেলওয়ে সূত্রে জানা গেছে, পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের  উত্তরবঙ্গের ঢাকা-পঞ্চগড় রুটে চলাচলকারী একতা, দ্রুতযান ও পঞ্চগড় এক্সপ্রেসের টিকিটের চাহিদা সবচেয়ে বেশি। এরপরই রয়েছে ঢাকা-কুড়িগ্রাম রুটের কুড়িগ্রাম ও রংপুর এক্সপ্রেস এবং ঢাকা-নীলফামারি রুটের চিলাহাটি ও নীলসাগর এক্সপ্রেসের চাহিদা। এই তিন রুটের টিকেট প্রথম ১০ মিনিটেই শেষ হয়ে যায়।

ঢাকা থেকে লালমনিরহাটে চলাচলকারী একমাত্র আন্তঃনগর ট্রেন লালমনি এক্সপ্রেস হওয়ায় এই রুটের টিকিটও দ্রুততম সময়ে শেষ হয়ে যায় বরাবরের মতো। ঢাকা থেকে রাজশাহীতে চলাচলকারী চার আন্তঃনগর ট্রেন-পদ্মা, সিল্কসিটি, বনলতা ও রাজশাহী এক্সপ্রেসের টিকিট বিক্রি হতে সময় লেগেছে এক ঘণ্টার মতো। যশোর ও খুলনা অঞ্চলের তিন আন্তঃনগর ট্রেন-বেনাপোল, সুন্দরবন ও চিত্রা এক্সপ্রেসের টিকিটও বিক্রি হয়ে যায় দুই ঘণ্টায়।

এদিকে, দুপুর ২টা থেকে পূর্বাঞ্চলের টিকিট বিক্রি শুরু হওয়ার সাড়ে ৪ ঘণ্টার মধ্যে টিকিট বিক্রি হয়ে যায়। এ অঞ্চলের জন্য বরাদ্দ ছিল ১৫ হাজার ৮১১টি টিকিট। প্রথম আধা ঘণ্টায় এই অঞ্চলের টিকিট পেতে হিট পড়ে ১ কোটি ১ লাখ।

ঢাকা রেলওয়ে স্টেশন ম্যানেজার মোহাম্মদ মাসুদ সারওয়ার বলেন, পশ্চিমাঞ্চলের টিকিট বিক্রির শুরুতেই উত্তরবঙ্গের টিকিটের অনেক চাহিদা ছিল। এদিন পূর্বাঞ্চলের টিকিটেরও চাহিদা ছিল।

রেলওয়ের কর্মপরিকল্পনা অনুযায়ী, ঈদের আগে আন্তঃনগর ট্রেনের ১২ জুনের আসন বিক্রি হয় ২ জুন; ১৩ জুনের আসন বিক্রি হয় ৩ জুন; ১৪ জুনের আসন বিক্রি হচ্ছে আজ ৪ জুন; ১৫ জুনের আসন বিক্রি হবে আগামীকাল ৫ জুন; ১৬ জুনের আসন বিক্রি হবে ৬ জুন।

প্রসঙ্গত, একজন যাত্রী সর্বোচ্চ চারটি টিকিট অনলাইনে সংগ্রহ করতে পারবেন। এছাড়া ট্রেনের যাত্রা শুরুর আগে স্টেশন থেকে ২৫ শতাংশ স্ট্যান্ডিং টিকিট বিক্রি হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..